ভোলায় জাটকা সংরক্ষণে মাছ ধরা নিষেধ

মো. সাইফুল ইসলাম, ভোলা: ইলিশ রক্ষায় ভোলার মেঘনা ও তেঁতুলিয়া নদীর নির্দিষ্ট এলাকায় দুই মাস সব ধরনের মাছ ধরা নিষিদ্ধ করেছে সরকার। প্রতিবছরের মত এবারও ১ মার্চ থেকে শুরু হয়ে ৩০ এপ্রিল পর্যন্ত এ আদেশ বলবৎ থাকবে বলে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে।

১লা মার্চ থেকে ৩০ এপ্রিল পর্যন্ত মেঘনা নদীর ইলিশা থেকে চরপিয়াল পর্যন্ত ৯০ কিলোমিটর এবং তেঁতুলিয়া নদীর ভেদুরিয়া থেকে চর রুস্তুম পর্যন্ত ১০০ কিলোমিটার এলাকায় এ নিষেধাজ্ঞা থাকবে বলে মৎস্য বিভাগ জানিয়েছে।

মৎস্য বিভাগ জানায়, এ দুই মাস ইলিশসহ সকল ধরনের মাছ ডিম ছাড়ে, আর তাই ১৯০ কিলোমিটার এলাকা মাছের আভায়াশ্রম। মাছের ডিম ছাড়ার প্রক্রিয়া নির্বিঘ্ন করতে মাছ ধরা বন্ধ থাকবে।

ভোলা জেলার মৎস্য কর্মকর্তা এস এম আজহারুল ইসলাম বলেন, জেলেরা যাতে ইলিশ শিকার না করে সে জন্য প্রচার-প্রচারণা ও সচেতনতা সভা করা হয়েছে। বেআইনিভাবে যদি কেউ মাছ শিকার করে তার জন্য রয়েছে শাস্তির বিধান।

আইনের পরেও জেলেরা আইন অমান্য করে বেআইনিভাবে মাছ শিকার করছে। গত কয়েক দিনে জেলে আটকের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২২ জন এর মত। এর মধ্যে জাটকা ব্যাবসায়ীদেরকেও আটক করা হয়েছে। জাটকা মাছ না ধরার জন্য জেলদেরকে অনুৎসাহিত করা হচ্ছে এবং প্রয়োজনে তাদেরকে চাল দিবে সরকার, বলে জানিয়েছেন কর্মকর্তারা। বেআইনিভাবে জাটকা মাছ শিকারে দেশের মৎস খাদ্য সংকটের প্রভাব পড়তে পারে। জাটকা ধরা বন্ধ করলে উন্নয়ন হবে জেলেদের, দেশ ও দেশের মানুষের।

Related Posts