পুরান ঢাকায় ‘পিঠা ও বাকরখানী উৎসব’

‘পুরাতন ঢাকার ঐতিহ্যবাহী স্থাপনাগুলো সংরক্ষণ ও সংস্কার চাই’ এ স্লোগান নিয়ে পুরনো ঢাকার ঐহিত্য ধরে রাখার চেষ্টায় পালিত হয়ে গেল পিঠা ও বাকরখানী উৎসব। সামাজিক সংগঠন ‘ঢাকাবাসী’র উদ্যোগে প্রতি বছর এই উৎসবের আয়োজন করা হয়।

শুক্রবার হাজারীবাগ পার্ক সংলগ্ন ঢাকাবাসীর কার্যালয়ে সংগঠনের উদ্যোগে পিঠা ও বাকরখানী উৎসবে চিতই, ভাপা, চৈ পিঠা, পোয়া পিঠা, পাকন পিঠা, ফুল জরি পিঠা, পাটি শাপটা, খেজুর পিঠা, ভিজা পিঠাসহ বিভিন্ন ধরণের পিঠা ও বিভিন্ন ধরনের বাকরখানী স্থান পায়।

ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংক এর সৌজন্যে অনুষ্ঠানে পিঠার পাশাপাশি পুরান ঢাকার ঐতিহ্যবাহী বিন বাদকরা বিন বাজনা। এছাড়াও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।


এছাড়া বক্তারা পুরাতন ঢাকার ছোট কাটারা, বড় কাটারা, নবাব বাড়ির গেইট, ঢাকার রূপলাল হাউজ এর সংস্কার ও সংরক্ষণের দাবি জানান। বিশেষ করে লালবাগ কেল্লা ও আহসান মঞ্জিলের কিছু অংশের প্রাচীর ঘেষে বিভিন্ন ব্যক্তি স্থাপনা নির্মাণ করেছেন। এ বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানান তারা। 

ঢাকাবাসী সংগঠনের সভাপতি শুকুর সালেকের সভাপতিত্ব অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ জাতীয় যুব সংগঠন ফেডারেশনের সভাপতি দুলাল বিশ্বাস।

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ঢাকাবাসীর উপদেষ্টা আজফারুজ্জামান সোহরাব। এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন ঢাকাবাসীর মহাসচিব শেখ খোদাবকস, সহকারী মহাসচিব শাহীন পারভীন ও সাংগঠনিক সম্পাদক রাশেদ মাহমুদ, মহানগর কমিটির আহ্বায়ক হুমায়ন আহেমদ মন্টুসহ সুশীল সমাজের নেতৃবৃন্দ।

প্রবাসী টিভির ইউটিউব চ্যানেলে যোগ দিতে এখানে ক্লিক করুন।

ইতিহাসের পাতার সুপারহিট:

Related Posts